রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে ফিলিস্তিনিদের ডিম নিক্ষেপ



07কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন বায়ার্ডকে লক্ষ্য করে ডিম ছুঁড়ে মেড়েছে ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীরা। তবে একটি ডিমও তার গায়ে লাগেনি।

রোববার রামাল্লায় ফিলিস্তিনি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে অধিকৃত পশ্চিমতীর সফরে যান কানাডার মন্ত্রী। এ সময় শতাধিক বিক্ষুব্ধ ফিলিস্তিনি তাকে লক্ষ্য করে ডিম ছুঁড়তে থাকে।

সৌভাগ্যবশত একটি ডিমও তার গায়ে লাগেনি। তবে একটি ডিম তার গাড়ির ছাদে গিয়ে আঘাত হানে বলে রয়টার্স জানিয়েছে।

ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীরা সফররত কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন বায়ার্ডের বিরুদ্ধে নানা ধরনের শ্লোগানও দেয়। এসময় বন্দুক এবং মেশিনগানধারী ফিলিস্তিনি বাহিনীর সদস্যদের নিষ্ক্রিয়ভাবে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। তারা বিক্ষোভকারীদের নিবৃত্ত করার কোনোরকম চেষ্টাই চালায়নি বলে জানা গেছে।

মধ্যপ্রাচ্য সংঘাতে কানাডা বরাবরই ইসরায়েলকে সমর্থন দিয়ে থাকে। ২০১২ সালের আগস্ট মাসে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে ফিলিস্তিনকে পর্যবেক্ষণকারী রাষ্ট্রের মর্যাদা দেয়ার সময় যে গুটিকয়েক দেশ এই প্রস্তাবের বিরুদ্ধে ভোট দিয়েছিল, তাদের মধ্যে কানাডাও ছিল।

শুধু তাই নয়, চলতি মাসে ফিলিস্তিনিদের আন্তর্জাতিক অপরাধী আদালতের সদস্য লাভের পদক্ষেপকে কঠোর ভাষায় সমালোচনা করেছেন জন বায়ার্ড। তিনি তাদের এই প্রচেষ্টাকে ‘বিপজ্জনক এবং উদ্বেগজনক’ বলে উল্লেখ করেছেন।

এদিকে রোববার ফিলিস্তিনি পক্ষের প্রধান শান্তি আলোচক সায়েব ইরেকাত গত বছর ইসরায়েলি কর্মকর্তাদের সঙ্গে অধিকৃত পূর্ব জেরুজালেম সফর করায় বায়ার্ডকে ক্ষমা চাইতে বলেছেন।

এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন,‘কানাডা সরকার ইতিহাসের ভুল পক্ষের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তারা ২০০৫ সালে পশ্চিম তীরের বাইরে গড়ে ওঠা ইসরায়েলিদের অবৈধ স্থাপনাকেও অন্ধভাবে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে। আমরা এ নিয়ে দু:খিত।’

প্রসঙ্গত, বিশ্বের বেশির ভাগ দেশই পশ্চিম তীর এবং পূর্ব জেরুজালেমে গড়ে ওঠা ইহুদি বসতিগুলোকে অবৈধ মনে করে থাকে।