রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

শেষের দিকে দর্শনার্থীদের পদচারনায় মুখরিত বাণিজ্য মেলা



সিলেট :: শেষের দিকে জমে উঠেছে ৫ম সিলেট আর্ন্তজাতিক বাণিজ্য মেলা । শুক্রবার ( ১২ এপ্রিল) ছুটির দিনে দর্শক/দর্শনার্থীদের পদচারণায় মুখরিত ছিল মেলা প্রাঙ্গন। জুমার নামাজের পর থেকে দল বেঁধে মেলা মাঠে প্রবেশ করতে দেখা যায় দর্শনার্থীদের। সিলেট নগরীর শাহী ঈদগাহে সদর উপজেলার খেলার মাঠে সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির আয়োজনে উদ্বোধনের পর তেমন জমেনি। মধ্যখানে কিছুটা জমলেও শেষের দিকে এসে পূর্ণতা পেয়েছে বাণিজ্য মেলা।
মেলার ১২০ টি স্টল ও ৩৫টি প্যাভিলিয়নে নতুন নতুন অত্যাধুনিক সব পণ্য নজর কাড়ছে ক্রেতাদের। আর আগামী ১৪ এপ্রিল পহেলা বৈশাখ থাকায় শুক্রবার মহিলা ও শিশুদের ভীড় ছিল গয়ণা ও কাপড়ের দোকানগুলোতে। এসকল দোকান থেকে তারা ক্রয় করছেন তাদের পছন্দের সামগ্রী। এছাড়া আগামী পহেলা বৈশাখ সকাল থেকে মেলার মাঠে রয়েছে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্টান।
সিলেট আর্ন্তজাতিক বাণিজ্য মেলা ঘুরে দেখা যায়, মেলার মাঠের প্রবেশদ্বারে রয়েছে আকর্ষনীয় ওয়াটার ড্যান্স। যা বাজনার তালে তালে নাচে হেলে দুলে। একটু সামনেই মধ্যখানে প্রবেশ করলেই চোখে পড়ছে ছোট্ট সোনামনিদের জন্য তৈরি আর্ন্তজাতিকমানের মিনি শিশু পার্ক। সেই পার্কে শিশুরা খেলা করছে ওয়াটার বল, ওয়াটার বাম্পার কার, ইলেকট্রিক ঘোড়া, চায়না বেলুনের ঘর, ইলেকট্রিক নাগর দোলা, ইলেকট্রিক নৌকা, ট্রেন ও যাদু প্রদর্শণীর প্যান্ডেল সহ নানা ধরণের খেলার রাইড ছড়ে। আর মেলার প্রশেদ্বারের বাম পাশেই রয়েছে মোটর সাইকেল ও কারের ডেঞ্জার গেইমের প্যান্ডেল। মূল গেইটের ডান ও বাম পাশ দিয়ে চর্তুদিকে বিস্তৃত মাঠ জুড়ে রয়েছে দেশি বিদেশি সুনামধণ্য কোম্পানীগুলোর প্যাভিলিয়ন ও স্টল। মেলায় আগত প্রতিবন্ধি শিশুদের জন্য প্রবেশ টিকেট থেকে শুরু করে সকল রাইডে বিনামূলে অংশগ্রহণ করার সুযোগ করে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।
বাণিজ্য মেলার ব্যবসায়িরা জানান, মেলায় পণ্য বিক্রি ভালই হচ্ছে। আর ক্রেতাদের ভীড়ও লক্ষণীয়।
মেলায় আগত নগরীর লেচু বাগানের বাসিন্দা তানভীর আহমদ চৌধূরী জানান, মেলা ঘুরে তার বেশ ভালই লেগেছে। পণ্যগুলোও মানসম্মত। তাছাড়া বিদেশে প্যাভিলিয়নের পাশাপাশি দেশি পণ্যের স্টলগুলো তার নজর কেড়েছে। তিনি আরো জানান, মেলায় শিশুদের রাইড দেখে তার মনে হয়েছে এটা একটা শিশু পার্ক। আর রাইডগুরোও অর্ন্তজাতিক মানের।
সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বারের সদস্য ও মেলার প্রধান সম্নয়ক এম এ মঈন খান বাবলূ জানান, শুক্রবার মেলায় দর্শণার্থীদের ভীড় ছিল চোখে পড়ার মতো। তিনি জানান, মেলার মেয়াদ শেষ হওয়ায় মেট্রোপলিটন চেম্বারের আবেদনের প্রেক্ষিতে বাণিজ্য মন্ত্রনালয় (স্মারক নং ২৬,০০,০০০০,১০৬,৮৬,০১২,১৭-১৪৭ ) এর আদেশে মেলার মেয়াদ বর্ধিত করা হয়েছে। আর এই পরিপত্র নির্দিষ্ট সকল বিভাগে প্রেরণ করা হবে।
সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কর্মাস এন্ড ইন্ডাস্ট্রির নব-নির্বাচিত সিনিয়র সহ-সভাপতি শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল বলেন, মেলায় দর্শনার্থীদের উপছে পড়া ভীড় রয়েছে। সকল বয়সের নারী পুরুষ মেলায় এসে তাদের পছন্দের সামগ্রী ক্রয় করছেণ। তিনি আরো জানান মেট্রোপলিটন চেম্বারের আবেদনের প্রেক্ষিতে বাণিজ্য মন্ত্রনালয় মেলার মেয়াদ বৃদ্ধি করেছেন। অনুমোদনপত্র ইস্যুর তারিখ ও প্রাপ্তির পর থেকে ৭ দিনের জন্য মেলার মেয়াদ বর্ধিত করা হয়। এর আগে গত ৮ এপ্রিল থেকে বাণিজ্য মন্ত্রনালয়ের এক আদেশে মেলার কার্যক্রম বন্ধ রাখা হয়।
এসএমপি’র বিমান বন্দর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহদাৎ হোসেন জানান, পুলিশ সকল সময় মেলা এলাকায় দায়িত্ব পালন করছে। মেলা সুন্দরভাবেই চলছে। আর মূল সড়কে যাতে যানঝট না লাগে সে জন্য মেলার সিকিউরিটির পাশাপাশি পুলিশও দায়িত্ব পালন করছে।