মঙ্গলবার, জুন ২, ২০ ২০
সুনামগঞ্জ ডেস্ক
৬ এপ্রিল ২০ ২০
৩:২৪ অপরাহ্ণ
ছাতকে সড়ক দূর্ঘটনায় স্বামী স্ত্রী মৃত্যু

হাসান আহমদ, ছাতক প্রতিনিধি::সুনামগঞ্জের ছাতকে সড়ক দূর্ঘটনায় স্বামী স্ত্রীর মৃত্যু। রোববার রাত পৌনে ৮টার দিকে সিলেট-সুনামগঞ্জ আঞ্চলিক মহা-সড়কের ছাতক থানাধীন আলাপুর গ্রাম সংলগ্ন এলাকায় এ দূর্ঘটনাটি ঘটেছে। নিহত সিএনজি অটো রিকশা চালক চেরাগ আলী (৫৫) ও তার স্ত্রী রাবেয়া বেগম (৪৫)। তাদেও বাড়ি উপজেলার গোবিন্দগ ঞ্জ-সৈদেরগাঁও ইউনিয়নের হায়াতপুর গ্রামে।

স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, পার্শ্ববর্তী মৈশাপুর গ্রামে আতির বাড়িতে যাওয়ার জন্য নিজের অনটেষ্ট সিএনজি অটো-রিকশা নিয়ে হায়াতপুর গ্রাম থেকে বের হন চেরাগ আলী। তিনি নিজেই চালক। এসময় ওই সিএনজি অটো রিকশায় ছিলেন তার স্ত্রী রাবেয়া বেগম ও কন্যা তানিয়া বেগম। সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়কের আলাপুর গ্রাম সংলগś এলাকায় পৌঁছামাত্র সুনামগঞ্জ থেকে সিলেটের দ্রুতগামী অজ্ঞাতনামা মাইক্রো তাদের সিএনজি-অটো রিকশাকে ধাক্কা দিয়ে ঘাতক পালিয়ে যায়। এসময় সিএনজি অটো-রিকশাটি সড়কে উল্টে অপর একটি যাত্রীবাহী রিকশার সাথে ধাক্কা লাগে। এতে আহত হন সিএনজি অটো-রিকশা চালক চেরাগ আলী ও স্ত্রী রাবেয়া। গুরুতর আহত অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধিন অবস্থায় রাত ১০টার দিকে মারা যান রাবেয়া। সোমবার ভোর সকালে মারা যান তার স্বামী সিএনজি অটো রিকশা চালক চেরাগ আলী। খবর পেয়ে সড়কের জয়কলস হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দূর্ঘটনা কবলিত সিএনজি অটো-রিকশাটি জব্দ করেন। কিন্তু মাক্রো ও ঘাতক চালককে পাওয়া যায়নি।
জয়কলস হাইওয়ে পুলিশের ইনচার্জ আমির উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, হাসপাতালে চিকিৎসাধিন অবস্থায় চেরাগ আলী ও রাবেয়া বেগম মারা গেছেন। তবে দূর্ঘটনায় সিএনজিতে থাকা তাদের কিশোরি কন্যা তানিয়া বেগম সুস্থ্য আছেন। বেলা আড়াইটায় গ্রামের মাঠে স্বামী স্ত্রীর জানাযা নামায অনুষ্ঠিত হয়েছে বলে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আখলাকুর রহমান ও ইউপি সদস্য সুরেতাজ মিয়া জানিয়েছেন। এদিকে গত বছরের ২ নভেম্বর একই স্থানে যাত্রীবাহী লেগুনা দূর্ঘটনায় মারা যান গোবিন্দগঞ্জ-সৈদেরগাঁও ইউনিয়নের বাউভোগলী গ্রামের দিনমজুর মখľুল আলী ও তার স্ত্রী হাসিনা বেগম। 

সম্পর্কিত খবর

পুরানো খবর দেখার জন্য