শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১ পৌষ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

এম এ মুকিত‘র সাথে বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের মতবিনিময়



শহীদ জিল্লুল হক জিলু স্মৃতি পরিষদের উদ্যোগে গ্রেটার সাসেক্স বিএনপির সভাপতি এম এ মুকিত‘র সাথে মতবিনিময় আলোচনা সভা আজ বুধবার ২৫শে এপ্রিল অনুষ্টিত হয়।

শহীদ জিল্লুল হক জিলু স্মৃতি পরিষদের উপদেষ্টা আহসান মাহবুবের সভাপতিত্বে শহীদ জিল্লুল হক জিলু স্মৃতি পরিষদের সভাপতি, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সাংগঠনিক সম্পাদক হোসাইন আহমদ ও শহীদ জিল্লুল হক জিলু স্মৃতি পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক , সিলেট জেলা ছাত্রদলের সদস্য ছদরুল ইসলাম লোকমান‘র যৌথ পরিচালনায়, সভা প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মহানগর বিএনপির সহ সভাপতি সেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক ৬নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ফরহাদ চৌধুরী শামীম।

প্রধান অতিথি বলেন, ফ্যসিবাদ জুলুমবাজ বিনা ভোটের সরকার গনমানুষের নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মিথ্যা বানোয়াট মামলায় সাজা দিয়ে কারাগারে রেখে বিনা ভোটের আরেকটি নির্বাচন করতে চায়। জাতীয়তাবাদী শক্তি এক যোগে কাদে কাদ মিলিয়ে দেশ নেত্রী মুক্তি ও গনতন্ত্রের মুক্তি জন্য আন্দোলন সংগ্রামে জীবন বাজি রেখে ঝফিয়ে পরতে হবে।

আমন্ত্রীথ অতিথি সিলেট জেলা ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি যুক্তরাজ্য সেচ্ছাসেবক দলে সাবেক আহবায়ক গ্রেটার্স সাসেক্স বিএনপির সভাপতি এম এ মুকিত বলেন, আমারা যারা প্রবাসে থাকি আমাদের আত্তা ও মন তাকে প্রিয় বাংলাদেশে যখন দেখি একজন স্বাধীনতার ঘোষকের স্ত্রী সেনা প্রধানের স্ত্রী সাবেক তিন বারের সফল প্রধান মন্ত্রী বিনা অপরাদে কারাভোগ করেন। তখন নিজের কাছে লজ্জা লাগে বাহির দেশের মিডিয়া যখন খবর আসে বাংলাদেশ বিশ্বের এক নাম্বার স্বৈরশাক লজ্জায় আমাদের মাথা ছোট হয়ে যায়।বাংলাদের অধিকার সার্বভূমি গণতান্ত্রীক এক মাত্র রক্ষা কবজ দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া।

তাই আপনারা যারা দেশকে ভালবাসেন স্বাধীনতাকে ও গনতন্ত্রকে মুক্ত করতে চান। তাদের প্রথম কাজ হবে ৯০র মত গন আন্দোলন গড়ে তুলে আমাদের নেত্রী আমাদের মা আপষহীন নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া কে মুক্ত করে জনতার মাঝে ফিরে আনতে হবে। আমরা সবাই যার যার অবস্থান থেকে কাজ করে যেতে হবে।

বিষেশ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন, কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল আহাদ খান জামাল, জেলা সেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ন আহবায়ক জেলা বিএনপির সহ কোষাদক্ষ জাকির হোসেন, জেলা সেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ন আহবায়ক জেলা বিএনপির সহ ক্রিয়া বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল ওয়াহিদ সুহেল, জেলা বিএনপির সদস্য মোশাহিদ আলী, দক্ষিন সুরমা সেচ্ছাসেবক দলের সাবেক আহবায়ক মহানগর বিএনপির সদস্য কামাল হাসান জুয়েল, ২৭নং ওয়ার্ড সেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক ওয়ার্ড বিএনপির সাধারন সম্পাদক দিলোয়ার হুসেন চৌধুরী, ২৩নং ওয়ার্ড স্বেচ্ছাসেবকদলের আহবায়ক জাবেদ আহমদ জীবন, হাটখোলা ইউনিয়ন বিএনপির সাধারন সম্পাদক আকবর আলী, স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা ইফতি আহমেদ সুমিম,ফোয়াদ কামালী, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ন সম্পাদক মোহাম্মদ আব্দুল কাইয়ুম, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সাধারন সম্পাদক কামাল হুসেন, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সাংগঠনিক সম্পাদক ফাহিম আহমদ মৌসুম,

আরও উপস্থিত ছিলেন, ৮নং ওয়ার্ড সেচ্ছাসেবক দলের আহবায়ক রাসেল আহমদ খান, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সদস্য শাহ আলম আলী, ১নং ওয়ার্ড সেচ্ছাসেবক দলের সাধারন সম্পাদক বাইন উদ্দিন, মহানগর ছাত্রদল নেতা ছাইদুল ইসলাম রনি, দিদার আহমদ, মহানগর সেচ্ছাসেক দল নেতা লাল মিয়া, আকির হুসেন, সাজীদ নুর বাবু, মাহিন মিয়া, ছাত্রদল নেতা মকসুদ আলম, সেচ্ছাসেবক দল নেতা আজিজ খান সজিব, জেলা ছাত্রদলের সদস্য জুবের আহমদ, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সদস্য শেখ শামসুদ্দিন সামছুল, জেলা ছাত্রদলের সদস্য শেখ নাজমুল ইসলাম, আবুল বাশার, সাইফুর রাহমান, সেচ্ছাসেক দল নেতা আশিক মিয়া, জেলা ছাত্রদলের সদস্য সজিব আহমদ, পলিটেকনিক –ইন্সিটিটিউড ছাত্রদলের সিনিয়ির যুগ্ম আহবায়ক আব্দুল কাদের,লায়েক আহমদ, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সদস্য সৈয়দ মিনহাজ, জেলা ছাত্রদলের সদস্য এস এম তাহফিম, মোঃ বাবুল হুসেন, নজরুল ইসলাম, নাজমুল, রুমন আহমদ, আনছার আলী, মিল্লাদ আহমদ, রাজিব আহমদ, হাবিবুর রহমান সবুজ, জাবেদ আহমদ, জুনেদ মিয়া ও পাপ্পু প্রমুখ। -বিজ্ঞপ্তি

UA-126402543-3