মঙ্গলবার, ২১ অগাস্ট ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ ভাদ্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
এই মুহুর্তের খবর
চাঁদ দেখা সাপেক্ষে সৌদি আরবে আজ ৯ জিলহজ পালিত হলো পবিত্র হজ  » «   কমলগঞ্জে পরকিয়ার জেরে পাষন্ড স্বামীর হাতে প্রাণ গেল এক গৃহবধুর !  » «   বিয়ানীবাজার থানায় বিত্তশালীদের মামলা রেকর্ড, দিনমজুরের মা লাঞ্ছিত!  » «   ধর্মপাশায় এক ব্যক্তির ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার  » «   সেই গোপন অস্ত্র প্রদর্শণ করল হিজবুল্লাহ  » «   জগন্নাথপুরে জমে উঠেছে ঈদ বাজার  » «   ওসমানীনগরে পশু জবাই করার সরঞ্জামাদী তৈরীতে ব্যস্ত কামারিরা  » «   হা‌সিনা সরকার আবারো বিনা ভোটে ক্ষমতায় যাওয়ার নীল নকসা করছে: মিজানুর রহমান চৌধুরী  » «   জগন্নাথপুরে নব-বধূকে এসিড খাইয়ে হত্যার চেষ্টা  » «   সিলেটের সীমান্ত দিয়ে অবৈধভাবে গরু নামাচ্ছে চোরাকারবারী সিন্ডিকেট  » «  

দক্ষিণ সুরমার জোড়া খুনের আসামী কোম্পানীগঞ্জে গ্রেফতার



ডেস্ক নিউজ:: সিলেটের দক্ষিণ সুরমার বরইকান্দি গ্রামে জোড়া খুনের আসামী সৈয়দুরকে (৪৫) গ্রেফতার করেছে কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ। বুধবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে আসামীর বসতবাড়ি থেকে কোম্পানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল হাই নেতৃত্বে একদল পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃত সৈয়দুর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার কালীবাড়ি গ্রামের আকরম আলীর ছেলে।

কোম্পানীগঞ্জ থানা সূত্রে জানা যায়, গ্রেফতারকৃত সৈয়দুরের বিরুদ্ধে ছিনতাই, ডাকাতি, হত্যা, মাদক ও পরিবেশ আইনে একাধিক মামলা রয়েছে। তবে দক্ষিণ সুরমার জোড়া খুনের ঘটনায় আসামী সৈয়দুরকে গ্রেফতার করলেও দক্ষিণ সুরমা থানা পুলিশ এখনও অবগত নন বলে জানান দক্ষিণ সুরমা থানার অফিসার ইনচার্জ খায়রুল ফজল।

উল্লেখ্য, গত ৬ মার্চ সকালে সিলেটের দক্ষিণ সুরমা বরইকান্দি এলাকায় দুই পক্ষের সংঘর্ষ হয়। সংঘর্ষ চলাকালে কোম্পানীগঞ্জের তেলিখাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলফু মিয়ার পক্ষের লোকজনের গুলিতে বরইকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি গৌছ মিয়ার পক্ষের শ্রমিক লীগ নেতা মাসুক মিয়া ও যুবলীগ নেতা বাবুল মিয়া নিহত হন। এ সময় গুলিবিদ্ধ ১৭ জনসহ আহত হন ২৫ জন।

এব্যাপারে কোম্পানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল হাই এর সাথে ফোনে যোগাযোগ করে হলে তিনি আটকের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, সৈয়দুরকে কোম্পানীগঞ্জের একটি মামলায় গ্রেফতার করা হয়। জোড়া খুনের মামলায় তাকে “শোন অ্যারেস্ট” দেখানো হয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, দক্ষিণ সুরমা থানাকে এখনও অবগত করা হয়নি। তবে দক্ষিণ সুরমা থানাকে লিখিত পত্র পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

এদিকে জোড়া খুনের আসামী সৈয়দুরকে “শোন অ্যারেস্ট” দেখানো হবে কি না জানতে চাইলে দক্ষিণ সুরমা থানার অফিসার ইনচার্জ খায়রুল ফজল বলেন, কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ আমাদেরকে অফিসিয়ালি অবগত করার পর আমরা শোন অ্যারেস্ট দেখাবো।