শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
এই মুহুর্তের খবর
চারখাই ত্রিমুখে ‘শহীদ নাহিদ চত্বর’র উদ্বোধন করলেন শিক্ষামন্ত্রী  » «   কমলগঞ্জের ধলই চা বাগানে মস্তকবিহিন নারীর লাশ উদ্ধার  » «   ওসমানীনগরে বাস চাপায় নিহত ২ : আহত ২  » «   হাউজিং এস্টেট এসোসিয়েশনের ৫০ বছর পূতি উপলক্ষে প্রথম সভা অনুষ্ঠিত  » «   জগন্নাথপুর পৌর পয়েন্টে ট্রাফিক চত্বর জরুরী  » «   সাধারণ শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে ক্লাস বর্জন ও মানববন্ধন পালিত  » «   সিলেটের চেঙ্গেরখাল নদীসহ বিভিন্ন নদ-নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন বন্ধ করার দাবিতে প্রতিবাদ বন্ধন  » «   ইরানের সামরিক কুচকাওয়াজে হামলায় ৮ সেনা নিহত  » «   সন্ত্রাসী হামলায় আহত এসপিআই শিক্ষার্থী নাঈম  » «   ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ কোতোয়ালী থানার প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত  » «  

সিলেট সিটি নির্বাচন: আপিলে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মো. এহসানুল হক তাহেরের মনোনয়ন বহাল



ডেস্ক রিপোর্ট:  সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বাতিলকৃত মনোনয়নপত্র নিয়ে আপিল করে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মো. এহসানুল হক তাহের বৈধতা পেয়েছেন। এবার আর নির্বাচন করতে তার আর কোন বাধা রইল না। গত বৃহস্পতিবার সতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মো. এহছানুল হক তাহের ও কাজী জসিমের আপিলের পরিপ্রেক্ষিতে তা শুণানী হয়। শুণানী শেষে তার মনোনয়ন বৈধতা ঘোষাণা করেন সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষ। এর পূর্বে সতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মো. এহসানুল হক তাহের, মুক্তাদির আহমদ তাপাদার ও কাজী জসিম মনোনয়ন বাতিল করে নির্বাচন কমিশন। বাতিল আদেশের পরিপ্রেক্ষিতে নির্বাাচনী বিধিমালা অনুযায়ি আপিল দাখিল করেছিলেন।
সুত্র জানায়, আসন্ন সিলেট সিটি কর্পোরেশন (সিসিক) নির্বাচনে প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বাছাইকালে ৯ জন মেয়র প্রার্থীর মধ্যে ৩ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করে নির্বাচন কমিশন। বাকি ৬ জনের মনোনয়নপত্র গ্রহণযোগ্য হয়েছে বলে জানায়। সোমবার মেয়র প্রার্থীদের মনোনয়ন বাছাইকালে যাদের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে তারা হচ্ছেন- এহসানুল হক তাহের, মুক্তাদির আহমদ তাপাদার ও কাজী জসিম। এরা তিনজনই স্বতন্ত্র হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন। এর আগে গত রবিবার (২ জুলাই) থেকে মনোনয়ন বাছাই শুরু হয়। সিলেট সিটি নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার মো. আলীমুজ্জামান মনোনয়নপত্র বাতিলের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।
সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের আপিল কর্তৃপক্ষ তাদের দেয়া আদেশে উল্লেখ করেন, যে চার জন ভোটার কে তদন্তকালে পাওয়া যায়নি। সেই চারজন ভোটার আপিল কর্তৃপক্ষের নিকট উপস্থিত হয়ে সম্মতিসূচক জবাব প্রদান করেন। তাছাড়া নোটারি পাবলিকের মাধ্যমে হলফনামামূলে প্রার্থীকে সমর্থন দিয়েছেন। তাই সার্বিক বিবেচনায় আপিল গ্রহণ করে মনোনয়ন বহাল করা হল।
মনোনয়ন বাতিল হওয়া সতন্ত্র প্রার্থী মো. এহছানুল হক তাহের জানান, সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আমি সতন্ত্র মেয়র প্রার্থী। নির্বাচন কমিশন আমার মনোনয়ন বাতিল ঘোষণা করেছেন। তাই আমি আমার মনোনয়ন বাতিল ঘোষনার বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে আপিল নং ২/১৮ ইং দাখিল করি। সেই লক্ষে প্রয়োজনীয় কাগজাতের কপি উত্তোলনের জন্য সোমবার (৩ জুলাই) আবেদন করেছিলাম। আর এই আপিল শুণানী শেষে নির্বাচন কমিশন আমার মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করেছেন।
স্থানিয় সরকার সিরেটের উপ-পরিচালক ও উপ-সচিপ জাকারিয়া জানন, নির্বাচন কমিশনের বাতিলকৃত কাউন্সিলর ও মেয়র প্রার্থীসহ মোট ১২ জন আপিল দায়ের করেছিলেন। এদের মধ্যে দুই মেয়র প্রার্থী মনোনয়ন বাতিল আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করেন। তাই শুনানি শেষে সতন্ত্র প্রার্থী মো. এহসানুল হক তারের মনোনয়নপত্র বহাল রেখেছেন আপিল কর্তৃপক্ষ।
সিলেট জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আলিমুজ্জামান জানান, নির্বাচন কমিশন কতৃক তিন সতন্ত্র প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল করা হয়। এর মধ্যে সতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মো. এহছানুল হক তাহের মনোনয়ন পত্র বাতিলের পর নির্বাচনী বিধিমালা অনুযায়ি আপিল দায়ের করেন। আপিল শুণানীর পর তা বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।
সিলেট বিভাগীয় কমিশনার নাজমুন আরা খানুম জানান, সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সতন্ত্র প্রার্থী মো. এহসানুল হক তাহেরের আপিল শুণানী শেষে তার মনোনয়নপত্র বহাল রাখা হয়েছে।