শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

প্রভাষক জুয়েলের খুনীদের ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন



সুনামগঞ্জ জেলার জামালগঞ্জ কলেজের প্রভাষক মোহাম্মদ আবু তৌহিদ জুয়েল এর খুনীদের ফাঁসির দাবীতে গত ১৭ জুন রোববার বিকেলে ৪টায় ধর্মপাশা উপজেলার বাদশাগঞ্জ বাজারের আওয়ামী লীগ অফিসের সামনে দুই ঘন্টা ব্যাপী এক মানব বন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়।

পাইকুরাটি ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মোঃ সিরাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও শিক্ষক ফজলুল করিম বুলবুলের পরিচালনায় মানববন্ধন চলাকলে বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন সেলবরষ ইউনিয়ন আওয়ামলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ বেনুয়ার হোসেন খান, যুব উন্নয়ন অফিসার আব্দুল জলিল আহম্মেদ মিলন, ধর্মপাশা উপজেলা জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি সাফায়েত হোসেন লিটন, ধর্মপাশা উপজেলা যুবলীগের সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক আব্দুল বারেক ছোটন, সেলবরষ ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি দুলা মিয়া, মধ্যনগর থানা আওয়ামীলীগের সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক কুতুব উদ্দিন তালুকদার, ধর্মপাশা উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মহন, শিক্ষক আনোয়ারুল হক, সেলবরষ ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সম্পাদক মন্তু খান পাঠান, ২নং ওয়ার্ড সম্পাদক খাইরুল ইসলাম, শিক্ষক এমদাদুল হক বকুল, ধর্মপাশা উপজেলা যুবলীগ নেতা মোঃ তাজউদ্দিন, মোঃ আবু সায়েম, ব্যবসায়ী মোঃ জামাল হোসেন, সাবেক মেম্বার মোঃ শফিকুল, ছাত্রলীগ নেতা রাজন আহমেদ, বাদশাগঞ্জ পাবলিক হাই স্কুল শিক্ষক মোঃ শফিক, মোঃ জিকু, বাদশাগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের প্রধান হিসাব রক্ষক মোঃ উজ্জ¦ল, উপজেলা বিএনপি নেতা মোঃ হীরা, ইউনিয়ন যুবলীগ নেতামোঃ সাখাওয়াত, মোঃ সবুজ মিয়া, বাদশাগঞ্জ পাবলিক হাই স্কুল সহকারীমোঃ শরীফ, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র কামরান আজাদ হৃদয়, ব্যবসায়ী মোঃ হারুন মিয়া, মোঃ লিখন, ধমপাশা যুবলীগ নেতামোঃ সুমেন মিয়া, পাইকুরাটি ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা মোঃ উজ্জ্বল মিয়া, মোহনগঞ্জ উপজেলা পরিষদের প্রকৌশলী মোঃ রাজিব, ব্যাংকার মোঃ মাসুম, এনজিও অফিসার মোঃ সায়েম, ব্যবসায়ী সাগর মিয়া, ছাত্র রুখেল মিয়া, মোঃ হুমায়ূন মিয়া, মোঃ আরিফ, মোঃ সাগর , মোঃ সোহাগ, সোহেল আহমেদ,

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, জুয়েল হত্যাকান্ডের সাত মাসের মধ্যেও পুলিশ আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি। এছাড়াও জুয়েলের ময়না তদন্ত রির্পোট সুনামগঞ্জের সদর হাসপাতালের আবাসিক ডাক্তার মোঃ রফিকুল ইসলাম আসামী লোকজনের সাথে আতাত করে গত ০৮/০২/২০১৮ তারিখে সিভিল সার্জন অফিসের অনুমোদন ছাড়াই আসামীর হাতে তুলে দেয়। যা অতন্ত্য অন্যায়। আমরা এর ধিক্কার জানাই এবং দোষী ডাক্তারকে যেন শাস্তির আওতাই আনা হয়।

নতুন কমিটির মাধ্যমে সঠিক ময়না তদন্তে রির্পোট প্রদান এবং আসামীদের দ্রুত গ্রেফতার করে শাস্তির আওতায় আনার প্রশাসনের প্রতি জোর দাবী জানান। অন্যথায় ছাত্র-শিক্ষক নিয়ে কাঠোর আন্দোলনে যেতে বাধ্য হবে বলে হুশিয়ারী উচ্চারণ করেন বক্তাগণ। বিজ্ঞপ্তি