শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
এই মুহুর্তের খবর
ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ কোতোয়ালী থানার প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত  » «   জগন্নাথপুরে ছাত্রদল নেতাকে ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক করায় ১১ সদস্যের পদত্যাগ !  » «   খাদিমনগরে ইউপি সদস্য দিলুকে জড়িয়ে মিথ্যাচারের প্রতিবাদে মানববন্ধন  » «   কারবালার আত্মাদান হলো জালিমের সামনে আল্লাহর বাণী প্রচারে সর্বোত্তম দৃষ্টান্ত: রেদওয়ান আহমদ চৌধুরী  » «   খালেদা জিয়ার অনুপস্থিতিতেই বিচার চালিয়ে যাওয়া ন্যায়বিচার পরিপন্থি: ফখরুল  » «   বিশ্বনাথে নারীদের ত্রি-মাসিক সেলাই প্রশিক্ষণের উদ্বোধন  » «   সিলেটে শিশু অপহরণ ও ধর্ষণ : ৬ দিনপর রংপুর থেকে উদ্ধার  » «   সিলেট আদালতে স্বীকারোক্তি : ধর্ষণের পর পানিতে চুবিয়ে রুমিকে হত্যা  » «   ওসমানীনগরে প্রানীসম্পদ ও ভেটেনারি হাসপাতালের নবনির্মিত ভবন উদ্ভোধন  » «   ছাতকে সেচ্ছাশ্রমে কাঁচা সড়ক সংস্কার  » «  

আওয়ামীলীগের ৩০০ আসনের প্রার্থী তালিকা প্রায় চূড়ান্ত: সিলেটে বিভাগে যারা…..



ডেস্ক রিপোর্ট:: জাতীয় সংসদের প্রার্থী নির্বাচন প্রক্রিয়ার অংশ হিসাবেই ওই খসড়া তালিকা প্রস্তুত করে ফেলেছেন তিনি। বিএনপি’র আসন্ন একাদশ নির্বাচনে অংশ নেয়া-না নেয়ার ওপর নির্ভর করছে আওয়ামী লীগের প্রার্থী তালিকার যোগবিয়োগের বিষয়টি। তবে এ মুহূর্তে হাইকমান্ড মনে করছেন, বিএনপি কোন অবস্থায়ই নির্বাচন বর্জন করবে না। বিএনপিকে মোকাবেলার দৃষ্টিভঙ্গিতে থেকেই প্রার্থিতা মনোনয়ন চূড়ান্ত করা হয়েছে।

হাইকমান্ড সূত্র জানিয়েছে, প্রার্থি মনোনয়নে তিন’শটি আসনের কথা মাথায় রেখে অগ্রসর হলেও বর্তমান শরীকদের চিন্তার বাইরে রাখা হয়নি। সে ক্ষেত্রে শরীকদের বর্তমান আসনগুলোতে আওয়ামী লীগের নিজস্ব প্রার্থী রাখা হলেও এসব প্রার্থীকে প্রয়োজনে ছাড় দেবার মানসিকতায় প্রস্তুত থাকতে বলা হবে।

বর্তমান শরীক এরশাদের জাতীয় পাটি, আনোয়ার হোসেন মঞ্জু’র জেপি, হাসানুল হক ইনু’র জাসদ, রাশেদ খান মেননের ওয়ার্কার্স পার্টিসহ অন্যান্য ছোট দলের জন্য তাদের বর্তমান আসনগুলোতেই ছাড় দেয়ার কথা ভাবা হচ্ছে। এর বাইরেও মোজাহিদুল ইসলাম সেলিমের সিপিবি, ‘৯৬-‘০১ শেখ হাসিনার ঐকমত্যের সরকারের নৌপরিবহন মন্ত্রী জাসদ সভাপতি আসম আব্দুর রবের জাসদ, বঙ্গবীর আব্দুল কাদের সিদ্দিকীর কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সঙ্গেও একটি নির্বাচনী আঁতাত করার চিন্তাভাবনার কথা জানা গেছে। জামায়াতের সঙ্গে বিএনপি’র নির্বাচন প্রত্যক্ষ নয়, পরোক্ষ হবে, সেদিকে দৃষ্টি রেখে যাবতীয় নির্বাচনী কুটকৌশল গ্রহণ করছে আওয়ামী লীগ।

গোয়েন্দা সূত্রগুলো সরকারকে বিএনপির নির্বাচনমুখী পরোক্ষ তৎপরতা সম্পর্কেও সজাগ রাখছে বলে জানা যায়। সরকারের হাইকমান্ড গোয়েন্দা সংস্থাগুলোর থেকে প্রাপ্ত ভিন্ন ভিন্ন রিপোর্টের চুলচেরা যাচাইবাছাইপূর্বক খসড়া প্রার্থী তালিকাটি প্রস্তুত করা হয়েছে বলে দাবি করেছে এ ঘনিষ্ঠ সূত্রটি।

নির্বাচন প্রক্রিয়া শুরু হলে দলের সংসদীয় বোর্ড সর্বশেষ সামান্য সংযোজন বিশোজনের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে তালিকাটি অনুমোদন করা হবে। হাইকমান্ডের তত্ত্বাবধানে থাকা তিন’শ আসনের এ প্রার্থী তালিকায় যাদের নাম উঠে এসেছে, তাদের নাম বিভাগভিত্তিক নিম্নে বর্ণিতহলোঃ

সিলেট বিভাগ :

সিলেট-১ বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, সিলেট-২ শফিকুর রহমান চৌধুরী, সিলেট-৩ হাবিবুর রহমান হাবিব, সিলেট-৪ ইমরান আহমেদ,সিলেট-৫ মাসুক উদ্দীন, সিলেট ৬-সারওয়ার হোসেন।

হবিগঞ্জ-১ আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়া, হবিগঞ্জ-২ আব্দুল মজিদ খান, হবিগঞ্জ-৩ নিজামুল হক রানা।
সুনামগঞ্জ-১ মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, সুনামগঞ্জ-২ জয়া সেন গুপ্তা, সুনামগঞ্জ-৩ আজিজ উস সামাদ ডন, সুনামগঞ্জ-৪ পীর ফজলুর রহমান, সুনামগঞ্জ-৫ মহিবুর রহমান মানিক।

মৌলভীবাজার-১ আব্দুল মতিন, মৌলভীবাজার-২, মৌলভীবাজার-৩ নিজামুল হক রানা, মৌলভীবাজার-৪ উপাধ্য আব্দুস শহীদ।