মঙ্গলবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

এবার হাফিজ সঈদকে ২৪ ঘণ্টা পাহারা দেবে সশস্ত্র আর্মি



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: আগামী বছরে পাকিস্তানের নির্বাচনে লড়তে চলেছে হাফিজ সঈদ সমর্থিত রাজনৈতিক দল। তাতেই রীতিমত উদ্বিগ্ন আমেরিকা। এবার সেই হাফিজ সঈদ একটা আস্ত সেনাবাহিনী গড়ে ফেলেছে বলে খবর।

‘জামাত-উদ-দাওয়া আর্মি’ নামে একটি নিজস্ব বাহিনী বানিয়েছে মুম্বই হামলার মাস্টারমাইন্ড এই জঙ্গিনেতা।

শুধু তাই নয়, পাক সেনা রীতিমত প্রশিক্ষণ দিচ্ছে এই জঙ্গিদের।

জামাত উদ দাওয়ায় নতুন নাম লেখানো জঙ্গিরা গুজরানওয়ালা এলাকায় শপথগ্রহণ করে হাফিজের ব্যক্তিগত সেনা বা নিরাপত্তা রক্ষী হিসেবে কাজ করবে। ‘গৃহবন্দি’ অবস্থা থেকে মুক্তি পাওয়ার পর নয়া জঙ্গিদের পাসিং আউট প্যারাডে যোগ দিতে গুজরানওয়ালা ঘুরে গিয়েছে এই আন্তর্জাতিক জঙ্গি।

হাফিজকে ২৪ ঘণ্টা নিরাপত্তা দেওয়ার দায়িত্ব লস্কর-ই-তইবার ঘাড়ে। নতুন একটি ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, সশস্ত্র এই বাহিনীর কাছে বিধ্বংসী আগ্নেয়াস্ত্র থাকছে সব সময়।

কয়েক মাস গৃহবন্দি থাকার পর মাত্র সপ্তাহকয়েক আগে হাফিজকে মুক্তি দিয়েছে পাক সরকার। তারপরেই সে জানিয়ে দেয়, সন্ত্রাসবাদের রাস্তা থেকে কোনওমতেই সরবে না সে। এমনকী নিজস্ব রাজনৈতিক সংগঠন মিল্লি মুসলিম লিগের কথা ঘোষণা করেছে সইদ। আগামী বছর পাকিস্তানের সাধারণ নির্বাচনে লড়বে তার দল। আমেরিকা আশঙ্কাপ্রকাশ করেছে, এই সংগঠনকে সামনে রেখে হাফিজ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী পদের জন্য ভোটে লড়তে পারে।

দু’দিন আগেই ওয়াশিংটনের তরফ থেকে বলা হয়, লস্করের নেতা হাফিজ সইদকে গৃহবন্দি দশা থেকে মুক্তি দিয়ে ভাল করেনি পাকিস্তান। মার্কিন প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, মুম্বই হামলার অন্যতম চক্রী ও জঙ্গি সংগঠন লস্করের প্রতিষ্ঠাতা হাফিজ যে আগামী বছর ভোটে দাঁড়াতে চলেছে, সেই বিষয়টিকে তারা যথেষ্টই নজরে রাখছে। তাদের প্রশ্ন, সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের দায়ে হাফিজের মাথার দাম ১ কোটি ডলার ঘোষণা করা হয়েছে। সে কিভাবে নির্বাচনে লড়বে, সেই প্রশ্নই তুলছে আমেরিকা।