বুধবার, ১৮ জুলাই ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
এই মুহুর্তের খবর

সিলেটে প্রথম কাটাছেড়া ছাড়াই ব্রেইন টিউমারের সফল অপারেশন



সুলতান সুমন:: সিলেটের জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে কোন রকম কাটাছেড়া ছাড়া মাথার ভেতরে ব্রেইনের জটিল অপারেশন সম্পূর্ণ করেছেন ডাক্তাররা।

সোমবার সকাল থেকে রাত পর্যন্ত প্রায় ১০ ঘন্টা ব্যাপি চেষ্টা চালিয়ে এ অপারেশন সম্পূর্ণ করা হয়।

ঢাকার বাইরে একমাত্র সিলেটে ব্রেইনের ভেতরে পিটুইটারি গ্লান্ড টিউমারের জটিল এ অপারেশন হয়েছে বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞ ডাক্তাররা।

সূত্রে জানায়, সিলেট নগরীর চারাদিঘীরপার এলাকার ৬৬/বি বাসার বাসিন্দা সাদেক আহমদ(৪০) দীর্ঘ দিন যাবৎ ব্রেইনের ভেতরে পিটুইটারি গ্লান্ড টিউমার জনিত রোগে ভুগছিলেন। তিনি এই জটিল রোগের চিকিৎসার জন্য সিলেট এম.এ.জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ সহ বিভিন্ন হাসপাতালে যোগাযোগ করেন এবং জানতে পারেন এই রোগের চিকিৎসা সিলেটে সম্ভব নয়।

অতপর তিনি স্মরনাপন্ন হন সিলেটের জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিউরোসার্জারি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান সহযোগী অধ্যাপক ডা. মো. নজরুল হোসেন’র কাছে। ডা. নজরুল হোসেন অনেক পরীক্ষা নিরীক্ষার পর সাদেক আহমদের ব্রেইনের ভেতরে পিটুইটারি গ্লান্ড টিউমারের অপারেশন করার জন্য সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। সে মোতাবেক সোমবার অপারেশনের তারিখ নির্ধারণ করা হয়।

ঐ দিন সকাল থেকে কাটাছেড়া ছাড়া নাকের ভেতর দিয়ে এন্ডোস্কপিক মেশিনের সাহায্যে অপারেশন শুরু করেন বিশেষজ্ঞ ডাক্তাররা ও জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিউরো সার্জারি বিভাগের ডাক্তারগণ।

জটিল এ অপারেশনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নাক-কান-গলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. মোফখ্খারুল ইসলাম টিটু।

জটিল এ অপারেশনে কারিগরি সহায়তা প্রদান করে ঢাকা থেকে আগত মেডট্রনিক টিম। তাছাড়াও আরো গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের এন্যাস্থেসিয়া বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. গোপিকেশ রঞ্জন দে ,ডা. পরিমল কিশোর দেব তাপস , ডা.মৃগাংক ভট্টাচার্য্য ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

এ ব্যাপারে জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিউরো সার্জারি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ডা. মো. নজরুল হোসেন জানান, দেশের মধ্যে ঢাকার বাইরে সিলেটেই প্রথম কাটাছেড়া ছাড়া ব্রেইনের পিটুইটারি গ্লান্ড টিউমারের জটিল অপারেশন করা হয়েছে, যা সিলেটেবাসির জন্য অত্যান্ত আনন্দের বিষয়। তিনি এ অপারেশনে সহযোগিতায় থাকা সকল বিভাগের ডাক্তারবৃন্দ ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।