মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

কোম্পানীগঞ্জ শ্রমিকদের সমাবেশে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে ৭২ ঘন্টার আল্টিমেটাম



ডেস্ক নিউজ::  সিলেটের কোম্পানীগঞ্জের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার পক্ষপাতদুষ্ট আচরনের বিরুদ্ধে ফুঁসে উঠেছেন বৃহত্তর কোম্পানীগঞ্জের শ্রমিকরা। রোববার বিকেলে উপজেলার স্থানীয় পাড়–য়া বাজারের স্কুল মাঠে এক বিক্ষোভ সমাবেশের মাধ্যমে আয়োজন করা হয়।

শ্রমিক সমাবেশকে কেন্দ্র করে বেলা ২টা থেকে বিভিন্ন স্থান থেকে শ্রমিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা খন্ড খন্ড মিছিল সহকারে সমাবেশস্থলে যোগ দেন। এক পর্যায়ে শ্রমিক সমাবেশটি স্থানীয় পর্যায়ের মহা সমাবেশে রূপ নেয়।
কোম্পানীগঞ্জের পশ্চিম ইসলামপুর ইউনিয়নের সাবেক প্যানেল চেয়ারম্যান মোঃ গেদা মিয়ার সভাপতিত্বে শ্রমিক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, সিলেট জেলা শ্রমিকলীগের সহসভাপতি ও উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল ওয়াদুদ। অনুষ্টানে প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন উপজেলা শ্রমিকলীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, কোম্পানীগঞ্জে শ্রমিকদের ইতিহাস অন্যায়ের কাছে মাথা নতো করার ইতিহাস নয়। শ্রমিকদের বিরুদ্ধে অন্যায় ভাবে অবস্থান নিয়ে কেউ চেয়ার দখল করে থাকতে পারেনি। কিন্তু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ আবুল লাইছ শ্রমিক নেতাকে আমন্ত্রন করে যে আচরন করেছেন, তা অত্যান্ত দুঃখজনক।

শুধু তাই নয়, তাঁর পক্ষপাতদুষ্ট আচরণ শ্রমিকলীগ তথা আওয়ামীলীগকে কুলষিত করেছে। তাই আগামী ৭২ ঘন্টার ভিতরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শ্রমিক নেতৃবৃন্দের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী না হলে দলীয় গণসংযোগ, স্মারকলিপি, ধর্মঘটসহ কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে। পাড়–য়া ছাত্র কল্যাণ ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক আকবর রেদওয়ান মনার সঞ্চালনায় শ্রমিক সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন পশ্চিম ইসলামপুর ইউনিয়নের প্রাক্তন মেম্বার ও প্রবীন আওয়ামীলীগ নেতা আবুল হোসেন, উপজেলা শ্রমিকলীগের সাবেক সহ সভাপতি আফজল হোসেন বতুল্লাহ, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পাথর ব্যাবসায়ী সমিতির সভাপতি আব্দুল জলিল, বিশিষ্ট মুরব্বি মশ্রব আলী, ইসলামপুর পশ্চিম ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি বিলাল হোসেন, বিশিষ্ট মুরব্বী আব্দুল হাসিম মাস্টার, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি শেখ মোর্শেদ, যুবলীগ নেতা আশরাফুল ইসলাম চান মিয়া, উপজেলা সেচ্ছাসেবকলীগ নেতা সাইফুল ইসলাম।

শ্রমিক সমাবেশে অনুষ্টানের প্রধান অতিথি জেলা শ্রমিকলীগের সহসভাপতি ও উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল ওয়াদুদ বলেন, কোম্পানীগঞ্জের মাটিতে আওয়ামীলীগ বিরোধী কোন এজেন্ডা বাস্তবায়ন করতে দেওয়া হবে না। দালাল ও লুটেরাদের স্থান এ মাটিতে হবে না। রশিদ ছাড়া কোন শ্রমিক রয়্যালিটি প্রদান করবে না। সমাবেশে শ্রমিকদের দাবী-দাওয়া আদায়ে ৬ দফা কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়।
সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ধলাইনদীর ১০ নং সাইড পাথর ব্যবসায়ী সমবায় সমিতি লিমিটেডের সভাপতি নুরুল আমিন, পাড়–য়া যুব উন্নয়ন ও বাণিজ্য সংস্থার সভাপতি নিজাম উদ্দিন, পাড়–য়া ছাত্র কল্যাণ ফেডারেশনের সভাপতি ফারুক আহমদ, বিশিষ্ট সমাজসেবী হাজী আব্দুল আউয়াল, আওয়ামীলীগ নেতা সফিক আহমদ, সোলেমান আহমদ, শ্রমিক নেতা আতাউর রহমান, মুজিবুর রহমান, বিল্লাল আহমদ, বাবুল মিয়া প্রমুখ। সভার শুরুতেই পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন তারা মিয়া।
উল্লেখ্য, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম ও কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি শেখ মোর্শেদকে মতবিনিময় সভায় বক্তব্য না দেওয়ার প্রতিবাদে শ্রমিকরা বিক্ষোভ সমাবেশ করেন।