রোববার   ২০ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৪ ১৪২৬   ২০ সফর ১৪৪১

১০৫

সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদের ইশতেহার ঘোষণা

প্রকাশিত: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ২১ ০৯ ২৭  

সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি নির্বাচনে ‘পরিবর্তনের অঙ্গীকার’ নিয়ে ইশতেহার ঘোষণা করল সিলেট সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদ। এবারের নির্বাচনে ‘পরিবারতন্ত্র পরিহার করি ব্যবসা ও বিনিয়োগ বান্ধব চেম্বার গড়ি’ এমন শ্লোগান হচ্ছে এই প্যানেলের মূলমন্ত্র। বুধবার দক্ষিণ সুরমার একটি অভিজাত পার্টি সেন্টারে সিলেট সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদের ব্যানারে সহস্রাধিক ব্যবসায়ীর সমাগম ঘটে। এসময় প্যানেলের প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়।
সিলেট সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদের ঘোষিত ইশতেহারে ২০ দফা উল্লেখ করা হয়। জাল জালিয়াতি ঠেকাতে উপদেষ্টা কমিটি গঠন করা হবে। চেম্বারের সদস্যদের মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হলে জটিলতা নিরসন ও ব্যবসা বান্ধব পরিবেশ সৃষ্টির জন্য আইনজীবী ও ব্যবসায়ী সমিতির সদস্যগণের সমন্বয় সাধন করে আরবিট্রেশন বোর্ড গঠন করা হবে। ভারতের সেভেন সিস্টার খ্যাত অপার সম্ভাবনাকে কাজে লাগিয়ে আমদানী রপ্তানির পরিবেশ তৈরী করা হবে বলে ঘোষিত ইশতেহারে উল্লেখ করা হয়।
সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদের ইশতেহার পাঠ করেন সিলেট চেম্বারের সাবেক সভাপতি ফারুক আহমদ মিসবাহ। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সিলেট জেলা ব্যবসায়ী ঐক্য কল্যাণ পরিষদের সভাপতি আলহাজ্ব শেখ মোঃ মকন মিয়া, সিলেট চেম্বারের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আমিরুজ্জামান চৌধুরী, ইট মালিক গ্রুপের সভাপতি হাজী দিলোয়ার হোসেন। স্বাগত বক্তব্য রাখেন সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদের সভাপতি মোঃ শাহ আলম। অর্ডিনারি শ্রেণীর প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেন সিলেট চেম্বারের সাবেক পরিচালক ও প্রবীণ ব্যবসায়ী ফটিক চন্দ্র সাহা। এসোসিয়েট শ্রেণীর প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেন আটাব সিলেটের সভাপতি আব্দুল জব্বার জলিল। ট্রেড শ্রেণীর প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেন এফবিসিসিআই’র সাবেক পরিচালক হিজকিল গুলজার। বক্তব্য রাখেন অর্ডিনারি প্রার্থীদের পক্ষে আবু তাহের মো: সুয়েব, এসোসিয়েট গ্রুপের পক্ষে মাসুদ আহমদ চৌধুরী মাকুম ও ট্রেড গ্রুপ থেকে বক্তব্য রাখেন মোঃ আমিনুজ্জামান জোয়াহির। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন মিশফাক আহমদ মিশু। বক্তব্য রাখেন সিলেট চেম্বারের সাবেক সহ-সভাপতি জুবায়ের আহমদ চৌধুরী, সিলেট চেম্বারের নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যান বিজিত চৌধুরী। পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন হাফিজ রাসেল আহমদ, পবিত্র গীতা পাঠ করেন নিত্য গোপাল চক্রবর্তী। অনুষ্ঠানে জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, ব্যবসায়ী গোলাম রব্বানী চৌধুরী, মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম, ফয়েজ উদ্দিন লোদী, সোহেল আহমদ, ওয়াহিদুর রহমান, নুরুল ইসলাম বাবুল প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে তিনটি ক্যাটাগরিতে সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদ মনোনিত প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়। এর মধ্যে পরিচালক পদে অর্ডিনারি ক্যাটাগরিতে আছেন ব্যালট নং-১৩ আবু তাহের মোহাম্মদ শুয়েব, ব্যালট-১৪ মো. মামুন কিবরিয়া সুমন, ব্যালট নং-১৫ এনামুল কুদ্দুস চৌধুরী, ব্যালট নং-১৬ মুকির হোসেন চৌধুরী, ব্যালট নং-১৭ হুমায়ূন আহমদ, ব্যালট নং-১৮ মো. ফারুক আহমদ, ব্যালট নং-১৮ মো. নজরুল ইসলাম, ব্যালট নং ২০ জুবায়ের রকিব চৌধুরী, ব্যালট নং-২১ আক্তার হোসেন খান, ব্যালট নং-২২ আব্দুল হাদি পাবেল, ব্যালট নং-২৩ শহীদ আহমদ চৌধুরী, ব্যালট নং-২৪ মোহাম্মদ আব্দুস সালাম। এই প্যানেলে এসোসিয়েট ক্যাটাগরিতে আরেকটি গ্রুপের প্রার্থীরা হলেন ব্যালট-১ মাসুদ আহমদ চৌধুরী মাকুম, ব্যালট-১ মো. এমদাদ হোসেন, ব্যালট-৩ পিন্টু চক্রবর্তী, ব্যালট-৪ আব্দুর রহমান, ব্যালট-৫ চন্দন সাহা, ব্যালট-৬ মো. আতিক হোসেন। গ্রুপ ক্যাটাগরিতে সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদের প্রার্থীরা হলেন-তাহমিন আহমদ, মো. আমিনুজ্জামান জুয়াহির, ওয়াহিদুজ্জামান চৌধুরী প্রমুখ। পরে নৈশ ভোজের আয়োজন করা হয়। -বিজ্ঞপ্তি
 

Dream Sylhet
ড্রীম সিলেট
ড্রীম সিলেট
এই বিভাগের আরো খবর